× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২৬ আগস্ট ২০১৯, সোমবার

দুষ্কৃতিদের দাবিমতো টাকা না দেয়ায় কলকাতায় বাংলাদেশি যুবককে মারধর

ভারত

কলকাতা প্রতিনিধি | ৩১ জুলাই ২০১৯, বুধবার, ১১:২৩

দুষ্কৃতিদের দাবিমতো টাকা না দেয়ায় কলকাতায় চিকিৎসা নিতে যাওয়া এক বাংলাদেশি যুবককে মারধর করা হয়েছে। বাংলাদেশি হওয়ায় দুষ্কৃতিরা তার কাছে টাকা দাবি করেছিল বলে অভিযোগ। টাকা দিতে অস্বীকার করাতেই তাকে প্রচন্ড মারধর করা হয়। ফলে তাকে ভর্তি হতে হয় বিধাননগর মহকুমা হাসপাতালে। গত সপ্তাহে নিউটাউনে এই ঘটনা ঘটেছে বলে পুলিশে অভিযোগ করেছেন প্রহৃত যুবক। পুলিশ সূত্রে খবর, বাসুদেব মন্ডল নামের এক বাংলাদেশি নাগরিকের অভিযোগ পাওয়ার পর তার কাছ থেকে পাওয়া বর্ণনা মিলিয়ে এলাকার পাঁচ যুবককে চিহ্নিত করা হয়েছে। পুলিশ মঙ্গলবার দুই অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করেছে। সোমবার রাতে পুলিশ সঞ্জয় হালদার ওরফে ট্যাম বাবু এবং সুমন সরকার নামে দুই অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করেছে।
বাকিদের খোঁজে তল্লাশি অভিযান চলছে। জানা গেছে, বাংলাদেশের খুলনার বাসিন্দা বাসুদেব মন্ডল চিকিৎসার জন্য কলকাতায় যান। 

তিনি নিউটাউনের শুলংগুড়ি এলাকায় একটি বাড়িতে ভাড়া ছিলেন। অভিযোগ, গত ২২ জুলাই রাত ১০টা নাগাদ প্রয়োজনীয় কয়েকটি জিনিস কিনতে তিনি পাশের মৃধা বাজারে যান। সেখানেই তার পথ আটকায় কয়েকজন স্থানীয় যুবক। নিউটাউন থানায় করা অভিযোগে বাসুদেব জানিয়েছেন, ওই যুবকরা প্রথমে তার পরিচয় জানতে চায়। নিজের পরিচয় দিয়ে তিনি তাদের জানান, চিকিৎসার জন্য ভারতে গিয়েছেন। অভিযোগ, ওই যুবকরা এরপরই তার কাছে টাকা দাবি করে। বলে, বাংলাদেশি কেউ ওই এলাকায় থাকতে গেলে তাদেরকে টাকা দিতে হবে। বাসুদেব পুলিশকে জানিয়েছেন, তিনি টাকা দিতে অস্বীকার করেন। তার পরেই ওই যুবকদের সঙ্গে তার বচসা শুরু হয়। ওই যুবকরা তার পরই মারধর করে। অভিযোগ, মারধর করার পর তার পকেট থেকে টাকার ব্যাগ কেড়ে নেয়। ওই ব্যাগে ২০ হাজার রুপি ছিল বলে দাবি বাসুদেবের। সেই টাকা ওই যুবকরা ছিনতাই করে পালিয়ে গিয়েছে। আহত যুবককে ওই রাতেই ভর্তি করা হয় বিধাননগর মহকুমা হাসপাতালে। গত ২৪ জুলাই তিনি হাসপাতাল থেকে ছাড়া পেয়ে নিউটাউন থানায় অভিযোগ দায়ের করেন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর