× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১৭ আগস্ট ২০১৯, শনিবার

‘খালেদাকে মুক্ত করতে হলে সরকার পতনের আন্দোলন ছাড়া বিকল্প পথ নেই’

দেশ বিদেশ

স্টাফ রিপোর্টার | ১০ আগস্ট ২০১৯, শনিবার, ৮:০৫

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেছেন, খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হলে আজ হোক কাল হোক সরকার পতনের আন্দোলন ছাড়া আর বিকল্প কোনো পথ নেই। প্রেস ক্লাব ভাড়া করে প্রোগ্রাম করলে খালেদা জিয়ার মুক্তি হবে না।
গতকাল শুক্রবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের মওলানা আকরম খাঁ হলে অপরাজেয় বাংলাদেশ আয়োজিত ‘ডেঙ্গুর ভয়াবহতা: জন আতঙ্ক ও সরকারের দায়বদ্ধতা’ শীর্ষক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, যে সরকারের নৈতিক ভিত্তি নাই কোনো জনসমর্থন নাই দায়বদ্ধতা নাই, সেই সরকারের প্রতি জনগণেরও কোনো দায়বদ্ধতা আছে বলে আমি মনে করি না। শেখ হাসিনা যদি ক্ষমতা ছাড়বেই, তাহলে খালেদা জিয়াকে কেন জেলে নেবে? আমরা তাকে মুক্ত করতে চাই কি না সে সিদ্ধান্ত আমাদেরকে নিতে হবে। শান্তিপূর্ণ, শান্তিপূর্ণ করে খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে পারব না। সুতরাং বিএনপির মতো একটা দল যে আন্দোলন করার যোগ্যতা রাখে কিন্তু সেই আন্দোলন না করলে খালেদা জিয়া মুক্তি পাবে না।
দলীয় নেতাকর্মীদের উদ্দেশ্যে গয়েশ্বর বলেন, আপনারা স্ব-স্ব অবস্থান থেকে  প্রস্তুতি নেন। নিশ্চিয়ই দল আপনাদের ডাক দেবে।
আর যদি ডাক না দেয়, তাহলে আমাদেরকে নিজেদেরই মাঠে নামতে হবে। খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে।
সংগঠনের সহ-সভাপতি ভিপি ইব্রাহিমের সভাপতিত্বে আলোচনাসভায় আরও বক্তব্য রাখেন, বিএনপির উপদেষ্টা কমিটির সদস্য জয়নাল আবদিন ফারুক, এলডিপির প্রেসিডিয়াম সদস্য মুক্তিযোদ্ধা ইসমাইল হোসেন বেঙ্গল, বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সালাম আজাদ, বিএনপির সহ-শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক ফরিদা মনি শহিদুল্লাহ, মহানগর বিএনপির সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা ফরিদ উদ্দিন,  তাঁতী দলের যুগ্ম-আহবায়ক ড. কাজী মনিরজ্জামান মনির প্রমূখ।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর