× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ২৩ আগস্ট ২০১৯, শুক্রবার

ডেঙ্গু নিধনে ওরা মাঠে

এক্সক্লুসিভ

স্টাফ রিপোর্টার | ১১ আগস্ট ২০১৯, রবিবার, ৭:৫৩

ডেঙ্গু নিধন কর্মসূচি নিয়ে মাঠে নেমেছে আসাদ ফ্যান ক্লাব। ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের আওতাধীন ২১ নং ওয়ার্ডে আসাদুজ্জামান আসাদের নেতৃত্বে ডেঙ্গু প্রতিরোধে সচেতনতা সৃষ্টি ও এডিস মশা নিধনে পরিচ্ছন্ন কর্মসূচি চলছে। মঙ্গলবার থেকে আসাদ তার ফ্যান ক্লাবের সদস্যদের নিয়ে এ কর্মসূচি শুরু করেন। ‘মানুষ বাঁচাও, ডেঙ্গু হটাও, ডেঙ্গুর বংশ এসো করি ধ্বংস’ এ স্লোগানকে সামনে রেখে এ কার্যক্রমে এরইমধ্যে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষার্থী, সাবেক ছাত্রনেতা ও ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী কমিটির অন্যতম সদস্য আসাদুজ্জামান আসাদের নেতৃত্বে স্থানীয় ছাত্রলীগ, যুবলীগ ও আওয়ামী লীগের ৪০ জন নেতাকর্মীর সমন্বয়ে ৫টি দলে বিভক্ত হয়ে এ কার্যক্রম চলছে। এ কদিনে তারা ঢাবির গিয়াসউদ্দিন আবাসিক এলাকা, শিববাড়ি, উত্তর নীলক্ষেত, দক্ষিণ নীলক্ষেত আবাসিক এলাকা ও ফুলার রোডস্থ শিক্ষকদের আবাসিক এলাকা, পরীবাগ, শাহবাগ, বাংলামোটর এলাকায় এ কার্যক্রম পরিচালনা করেছেন। এলাকার বিভিন্ন সড়ক, ড্রেন ও বাসাবাড়ির বিভিন্ন স্থানে মশার লার্ভা ধ্বংসের ওষুধ ও ব্লিচিং পাউডার ছিটাচ্ছেন। এছাড়া ডেঙ্গুর ব্যাপারে জনগণকে বিভিন্নভাবে সচেতন করা হচ্ছে।
এ ব্যাপারে আসাদুজ্জামান আসাদ বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় আমার পরিবার। ২১ নং ওয়ার্ডের প্রত্যেকটি বাসিন্দা আমার আত্মার আত্মীয়। তাদের প্রতি মানবিক দায়বদ্ধতা ও ভালোবাসা থেকে আমি এ কাজ চালিয়ে যাচ্ছি। যতদিন বেঁচে থাকব তাদেরই একজন হয়ে সুখ-দুঃখে তাদের পাশে থাকতে আমি অঙ্গীকারাবদ্ধ। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মচারী ও শিববাড়ি এলাকার বাসিন্দা শাহজাহান খান বলেন, আমরা আসাদের এ ধরনের উদ্যোগে সত্যিই আপ্লুত। আসাদের সঙ্গে এ কার্যক্রমে অংশ নিয়েছেন, ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতা  লিটন, আবু তাহের সাগর, মেহেদি হাসান, ২১ নং স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শাহেদুল ইসলাম তোহা, অর্থ সম্পাদক বাবুল হোসেন, সমাজ কল্যাণ সম্পাদক শিবলী নোমান, যুবলীগের সহ সভাপতি গোলাম মোস্তফা, যুবলীগ নেতা জানে আলম জনি, ২১ নং ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক তাউহিদুল ইসলাম সুজন, নীলক্ষেত স্কুল ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি ইসরাফিল পাভেল প্রমুখ।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর