× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার
ঢাকা, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৯, মঙ্গলবার
পুলিশ সুপারকে বিদায়ী সংবর্ধনায় সালমান এফ রহমান

ঢাকা জেলা পুলিশ সব সময় ভালো কাজ করে

শেষের পাতা

দোহার (ঢাকা) প্রতিনিধি | ৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, সোমবার, ৮:৪৩

প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ বিষয়ক উপদেষ্টা সংসদ সদস্য সালমান এফ রহমান বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী পুলিশ বাহিনীকে বিভিন্ন সুযোগ-সুবিধা দিয়েছে। যাতে পুলিশ বাহিনী তাদের কাজ সঠিক ভাবে করতে পারে। ঢাকা জেলা পুলিশ সব সময় ভালো কাজ করে। তার প্রমাণ ইতিমধ্যে তাদের কর্মকাণ্ডে প্রমাণ করেছে।’ শনিবার ঢাকার দোহারে ঢাকা জেলা পুলিশ সুপার শাহ মিজান শাফিউর রহমানকে   পদোন্নতিজনিত বিদায় সংবর্ধনায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। দোহার থানা চত্বরে দোহার ও নবাবগঞ্জ থানা পুলিশ এ সংবর্ধনার আয়োজন করেন। এ সময় তিনি সালমান এফ রহমান বলেন, শাহ মিজান শাফিউর রহমান একজন ভালো অফিসার। তার প্রমাণ পাওয়া যায় ওনার কর্মকাণ্ডে। তাকে অভিনন্দন জানাই পদোন্নতি পাওয়ার জন্য। আমি তাকে বলেছিলাম আমার দোহার ও নবাবগঞ্জের কোনো মানুষ যেন পুলিশের কাছে অযথা হয়রানি না হয়। ধন্যবাদ জানাই ওনাকে, ওনি আমার কথাটা রেখেছেন। একই অনুষ্ঠানে দোহার-নবাবগঞ্জ থানা প্রশাসন, উপজেলা পরিষদ ও দুই উপজেলার আওয়ামী লীগ ও তার বিভিন্ন অঙ্গ সংগঠনের পক্ষ থেকেও পুলিশ সুপারকে সংবর্ধনা দেয়া হয়।  ঢাকা জেলা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাসুম আহমেদ ভূঞা’র সভাপতিত্বে এ সময় উপস্থিত ছিলেন আইজিআর খান আব্দুল মান্নান, বিদায়ী পুলিশ সুপারের সহধর্মিণী রোকেয়া খাতুন, শাহজালাল ইসলামী ব্যাংকের চেয়ারম্যান আক্কাচ উদ্দিন মোল্লা, আওয়ামী লীগের জাতীয় কমিটির সদস্য আব্দুল বাতেন মিয়া, দোহার উপজেলা চেয়ারম্যান মো. আলমগীর হোসেন, নবাবগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান নাসির উদ্দিন আহমেদ ঝিলু, স্বেচ্ছাসেবক লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সভাপতি নির্মল রঞ্জন গুহ, দোহার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আফরোজা আক্তার রিবা, দোহার থানার অফিসার ইনচার্জ মো. সাজ্জাদ হোসেন, নবাবগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মোস্তফা কামাল প্রমুখ। শাহ মিজান শাফিউর রহমান সম্প্রতি পুলিশের অতিরিক্ত ডিআইজি হিসেবে পদোন্নতি পেয়েছেন। তিনি ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের যুগ্ম কমিশনারের দায়িত্ব পালন করবেন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
সুলতান
৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, সোমবার, ৬:২৯

সবই গোফালঞ্জের পুলিশ ভাল কাজ করেন এটা আপনাদের বাসা। একবির জনমত নিয়ে দেখেন? সবই মহান আল্লাহ্রর ভাল যানেন।

Nil
৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, রবিবার, ১১:১৭

Polise super transfer hoe e jela theke onno jelay asbe. Etai ki o niom je take abar somvordana dite hobe vumi dosso ke, rasta dokhol kari dokander pokhkho theke. Sob chor rai to sommondhana dissr. Valo manuser kaj ki poliser kase.

অন্যান্য খবর