× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা ইলেকশন কর্নার মন ভালো করা খবরসাউথ এশিয়ান গেমস- ২০১৯
ঢাকা, ৯ ডিসেম্বর ২০১৯, সোমবার

রণক্ষেত্র ভোলা, পুলিশ-জনতা সংঘর্ষ, নিহত ৪, শতাধিক আহত (ভিডিও)

অনলাইন

ভোলা প্রতিনিধি | ২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ১:০৩

ভোলায় হিন্দু ধর্মাবলম্বী এক ব্যক্তির আল্লাহ ও রাসুল (স.)কে নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদে সাধারণ মুসল্লিদের ডাকা বিক্ষোভ কর্মসূচিতে ব্যাপক সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। আজ সকাল থেকে শুরু হওয়া সমাবেশে হঠাৎ পুলিশের সঙ্গে সাধারণ জনতার সংঘর্ষ শুরু হয়। নিহত এক জনের নাম গনি ।  

এই ঘটনায় পুলিশসহ আহত শতাধিক বলে প্রাথমিকভাবে জানা গেছে। আহত পুলিশকে হাসপাতালে নিলেও সাধারণ মানুষ বিভিন্ন ঘরে আটকা পড়েছেন। এই বিক্ষোভ ছড়িয়ে পড়েছে গ্রামেগঞ্জেও। গুরুতর গুলিবিদ্ধ ৮ জনকে ভোলা সদর হাসপাতালে আনা হয়েছে।

স্থানীয় ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, হিন্দু ধর্মাবলম্বী বিপ্লব চন্দ্রের ফেসবুক আইডি থেকে তার বন্ধু তালিকার বেশ কয়েকজনের কাছে আল্লাহ এবং রাসুল (সঃ) কে নিয়ে কুরুচিপূর্ণ ভাষায় গালির ম্যাসেজ আসে।
বিপ্লব চন্দ্র শুভ বোরহানউদ্দিন উপজেলার কাচিয়া ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের চন্দ্র মোহন বৈদ্দের ছেলের আইডি থেকে এই ম্যাসেজ আসাকে কেন্দ্র করে সাধারণ মুসুল্লিদের ব্যানারে আজ সকাল ১০টায় বিক্ষোভের ডাক দেয়া হয়। সকাল থেকে বোরহানউদ্দিন উপজেলার গ্রামগঞ্জ থেকে মুসুল্লিরা শহর অভিমুখে আসতে থাকে। এতে ভোলার প্রলিশ সুপার পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের জন্য পুলিশ মোতায়েন করেন। পুলিশ সভা সংক্ষিপ্ত করার জন্য নির্দেশ দেয়ার পর পরেই সংঘর্ষের শুরু হয়। প্রথমে এক পুলিশ সদস্য গুলিবিদ্ধ হওয়ার পর পুলিশ আত্মরক্ষার্থে গুলি ছুঁড়লে পুলিশের গুলিতে পথচারিসহ বিক্ষোভকারী আহত হন।

এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ভোলা শহর পুলিশের নিয়ন্ত্রণে থাকলেও গ্রামগঞ্জে বিক্ষোভ চলমান। ভোলা সদর পুলিশ লাইন্স থেকে অতিরিক্ত পুলি ডেকে পাঠানো হয়েছে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
Ferdous
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৯:০৪

রাসুলের (সঃ) অপমানে কাঁদেনা যদি তর মন মুসলিম নয় মুনাফিক তুই রাসুলের(সঃ) দুশমন। (কবি কাজী নজরুল ইসলাম)

Mahmud
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৮:১০

অদৃশ্য এক জানোয়ারের উপর চলছে বাংলাদেশ | গুজব হতে পারে তাই বলে পুলিশ ৪ তা প্রাণ কেড়ে নিবে কোন অধিকারে ? তারা আমাদের টাকায় তাদের সন্তান ও মা বাবার আহার জোগাড় করেন ( যদিও বেতনের টাকার থেকে অবৈধ টাকা বেশি ) | এই গুলির সংস্কৃতি কবে শেষ হবে | এক অসভ্ভো ,অভদ্র সমাজে পরিণত হয়েছে এই দেশ |

Bonggoj Bihonggo
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৭:৫২

গণতান্ত্রিক দেশে নিজের হাতে আইন তুলে নেওয়া অপরাধ। কাউকে অপরাধী মনে হলে আদালতে বিচারের জন্য এভিডেন্সসহ থানায় অভিযোগ করতে হবে, এই শিক্ষাটাই সরকার জনগণকে দিতে পারেনি। ভোলার ঘটনা সরকারের অযোগ্যতা, কুশাসন ও ব্যর্থতার ফসল। কারণ অতীতেও নানান স্থানে এমন ঘটনা ঘটছে, সরকার প্রশাসন তা থেকে কোনো অভিজ্ঞতাই অর্জন করতে পারেনি।

KkKh
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৭:৪২

সোসাল মিডিয়ায় কত পোস্ট দেখলাম হিন্দু ধর্মকে অবমাননা করে। কিন্তু কই হিন্দুরা তো কোন আন্দোলন করল না, কোন মামলা করল না? মুসলমানদের এত গাত্রদাহ কেন হয়? আসলে এটা তাদের এক ধরণের কালচার এ পরিণত হয়েছে।

গনিম
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৭:৩৯

খুনি বাহিনী কে গ্রেফতার করা হোক এবং আসামিদের ফাঁসি কার্যকর করা হোক

Mohammed Shadakul Is
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৭:২৪

আবশ্যই পুলিশের সিদ্ধান্তে ইস্কনের ইন্ধন রয়েছে ।

স্বপন মাঝি
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৭:০৯

বিপ্লব চন্দ্র শুভ ছেলেটা চালাক ছিলো। তার আইডিতে অন্য কেউ লগ ইন করেছে এবং সেখান থেকে ধর্মীয় বিদ্বেষপূর্ণ মেসেজ অন্যদের পাঠানো হচ্ছে এটা জানার পর সে বুঝে গিয়েছিলো যে, আরেকটা নাসিরনগরের ছক কাঁটা হচ্ছে। ফলে, সে নিজেই তৎক্ষণাৎ পুলিশের কাছে চলে যায় এবং আসন্ন বিপদের কথা চিন্তা করে নিজেই জিডি করে রাখে এবং পুলিশও ছেলেটাকে পুলিশি হেফাজতেই রেখে দেয়। ছেলেটার ধারণা মিথ্যা হয়নি। পরদিন সকালেই তার শাস্তির দাবিতে অনুভূতিসর্বস্ব মুমিনরা একেবারে ব্যানারসহ বিশাল মিছিল বের করে। পুলিশ যেহেতু আগে থেকেই জানতো, তাই তারাও এমন কিছুর জন্য প্রস্তুত ছিল। মুমিনরা কখনো শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভ করেছে এমন শুনেছেন? না, এই ক্ষেত্রেও সেটা হয়নি। মুমিন এবং পুলিশের মধ্যে বাঁধলো সংঘর্ষ যে সংঘর্ষে িতমধ্যে মারা গেছে ৪ জন! এই কথাগুলো নেয়া হয়েছে Saiful Islam এর স্ট্যাটাস থেকে। আরেকজনের স্ট্যাটাসে দেখলাম, হিন্দুদের বাড়ীঘরে হামলা চালানো হয়েছে। আগুন দেয়া হয়েছে। এর নাম কি শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ? এখানে সেই হামলার ছবি নেই। আছে আহত নিহতদের খবর।

Badsha Wazed Ali
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৭:০৫

কেউ কোন মাধ্যমে ইসলামের কটুক্তি করলে কি ইসলাম শেষ হয়ে যাবে? ইসলাম তো এতো ঠুনকো নয়। যে ক’জন মানুষ মারা গেল, তাদের পরিবারের কাছে শুনুন, এ মৃত্যু তারা চায় না। এভাবে জেহাদি হওয়ার দরকার ছিল না। ইসলামে হিকমত বলে একটা কথা আছে। সেটা কই? পুলিশ আমার তোমার উপদেশ শুনবে না। তাহলে, যুক্তিহীন মৃত্যুর পথে কেন যাবো? একদিন সবকিছু পরিবর্তন হবে। আমার চেতনা, মানসিকতা এমনকি সময়ের। শুধু আমিই ঝরে গেলাম। এ সব অদূরদর্শি সিদ্ধানন্তের কারণে ইসলামের ক্ষতি হচ্ছে। বিশেষ এক ইজমের সৃষ্টি হচ্ছে। আল্লাহ আমাদের হেফাজত করুন।

md sharifuzzaman
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৬:৫৭

সাধারণ মানুষ কি বন্ধুক নিয়ে গুলাগুলি করতে গিয়েছিল? পুলিশের পক্ষ থেকে বলা হয়েছে গুলিতে এক পুলিশ সদস্য আহত হলে তারা পাল্টা গুলি চালায়। এর অর্থ কী?

Kamruzzaman
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৫:৪০

এ কোন সমাজ রাষ্টে আমরা বসবাস করি এখানে কি সাধারণ মানুষ কোন প্রতিবাদ করতে পারবে না প্রতিবাদ করলেই কি গুলি করতে হবে?

রিপন
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৬:৩৬

 এটা জম্মু কাশ্মির নয়, এটা বজ্রনির্ঘোষ বাংলা। আপন সার্বভৌম মহিমায় বাংলা জেগে উঠবেই ইনশাল্লাহ। কেউই দাবিয়ে রাখতে পারবে না।

Sabuj
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৫:২৭

রাসূলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম কে কটুক্তির কারণে সাধারন মুসলিমরা স্বাভাবিকভাবেই রাগান্বিত ছিল, তাই বলে কি তাদের হত্যা করতে হবে? পরিস্থিতি তো সংযত হয়ে নিয়ন্ত্রণে নেয়া যেত, এমন অতি উৎসাহী কতিপয় পুলিশের শাস্তি নিশ্চিত করুন নতুবা পরিস্থিতি অস্বাভাবিক হতে পারে।

Asad
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৪:১৭

Sad....

মোঃ রেজাউল করিম চৌধু
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৪:১০

মানুষ কি প্রতিবাদ টুকুও করতে পারবে না?

sm mozibur bin kalam
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ৩:৩৯

মাঝে মাঝে মনে হয় যেন আমরা ভারতের মধ্যে বসবাস করছি।

Rashed
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ২:২৩

Allah and rasool er name e je kutokti korese tar fashi dewa sai

Anamul
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ২:১৪

জারা আল্লাহ ও রাসুলের বিরুদ্ধে কথা বলে তাদের কে না মরা পরজন্ত জুতা পেটা করা দরকার র পুলিস ভাইদের উচিত সিল হিন্দুদের সাস্তি দেওয়ার

সোহেল
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ১:২০

এতো মানুষ যদি বন্দুক নিয়ে যেত অর পা ডলা দিতো পুলিশগুলো একটাও বাঁচতো!?? তাহলে জনতার গুলির আত্মারক্ষার্থে গুলি করছে লেখার মানে কি?

Muhammad Ahmad Asfak
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ১২:৫২

কটুক্তকারীর ফাসি চাই

তারেক
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ১২:৩৭

পুলিশ যেমন জনগণের উপর আক্রমন করেছে, জনগনও যদি পুলিশের বাড়িতে আক্রমন চালায় কি অবস্থা হবে পুলিশ ভাইরা ভেবে দেখেছেন?

জাফর আহমেদ
২০ অক্টোবর ২০১৯, রবিবার, ১২:১৯

এখন যদি ক্ষমতা বান কারো নামে কুট‌উক্তি করা হতো । তাহলে অপরাধ হতো। কিন্তু আল্লাহ ও রাসূলের প্রতি করা হয়েছে তাই অপরাধ হবে কেন।

অন্যান্য খবর