× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকরোনা আপডেট
ঢাকা, ৪ এপ্রিল ২০২০, শনিবার

কোটালীপাড়ায় চিরকুট লিখে কলেজছাত্রীর আত্মহত্যা

বাংলারজমিন

কোটালীপাড়া (গোপালগঞ্জ) প্রতিনিধি | ২৫ মার্চ ২০২০, বুধবার, ৬:৫২

গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়ায় চিরকুট লিখে বঙ্গবন্ধু বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের এইচ.এস.সি প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী নাবিলা খানম (১৭) নামে কলেজছাত্রী আত্মহত্যা করেছে। সে উপজেলার বান্ধাবাড়ী ইউনিয়নের পশ্চিম হরিনাহাটি গ্রামের হেমায়েত উদ্দিন খানের মেয়ে। গত রোববার বিকালে তাদের বসতঘরে গলায় ওড়না দিয়ে ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করে। পুলিশ শিক্ষার্থীর লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য গোপালগঞ্জ মর্গে পাঠিয়েছে। এ সময় তার মৃতদেহ থেকে একটি চিরকুট উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিহতের চাচা সান্টু খান বলেন- পার্শ্ববর্তী নাগরা গ্রামের টুটুল শেখের ছেলে সোহাগ শেখের বিরক্তির কারণে আমার ভাতিজি আত্মহত্যা করেছে এবং নাবিলার মৃতদেহ থেকে একটি চিরকুটে তার মৃত্যুর জন্য সোহাগ শেখকে দায়ী করেছে, যাদের কারণে আমার নাবালিকা ভাতিজি আত্মহত্যা করতে বাধ্য হয়েছে, আমরা তাদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাই, তিনি আরো জানান সোহাগের  পরিবারের লোকজন নাবিলাকে বিয়ে করার জন্য চাপ দিতে থাকে এবং বিভিন্ন কৌশল অবলম্বন করে। কোটালীপাড়া থানার ওসি তদন্ত মো. জাকারিয়া বলেন- এ ঘটনায় একটি অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে, লাশ ময়নাতদন্তের জন্য গোপালগঞ্জ মর্গে পাঠানো হয়েছে, আত্মহত্যার কারণ খতিয়ে দেখা হচ্ছে এবং চিরকুটের বিষয়টি যাচাই করা হচ্ছে। এ ঘটনার পর অভিযুক্ত সোহাগ ও তার পরিবারের লোকজন এলাকা ছেড়ে পালিয়েছে।

 

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর