× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকরোনা আপডেটকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজান
ঢাকা, ৭ জুন ২০২০, রবিবার

প্রকাশ্যে থুথু ফেলায় কলকাতায় জেল, জরিমানা

ভারত

কলকাতা প্রতিনিধি | ৩০ এপ্রিল ২০২০, বৃহস্পতিবার, ৭:০৪


পথে-ঘাটে ও প্রকাশ্য স্থানে থুথু ফেলাটা আমাদের বদ অভ্যাসের অন্যতম। আর যারা পান, তামাক ও গুটকা জাতীয় নেশাদ্রব্য গ্রহণ করেন, তারা তো প্রকাশ্যে পিক ফেলতে কোনও লজ্জাবোধ করেন না। বহু অফিসে বা বাস ও রেল স্টেশনে দেখা যায় পিকের রঙে রাঙা হয়ে রয়েছে বিভিন্ন জায়গা। তবে করোনা ভাইরাস সংক্রমণে থুথুও মাধ্যম। তাই সতর্কতা হিসেবে প্রকাশ্যে থুথু ফেলতে নিষেধ করা হয়েছে। রাজ্যের মুসলিম ধর্মগুরুরাও রোজার সময়ে পথে ঘাটে থুথু না ফেলে তা গিলে ফেলতে বলেছেন। এতে রোজা ভঙ্গ হয় না বলে নিদান দিয়েছেন তারা। তবে কলকাতায় এই প্রথম প্রকাশ্যে থুথু ফেলায় একজনের বিরুদ্ধে মামলা রুজু করেছে পুলিশ।
৫৫ বছরের প্রৌঢ কুমার গৌরিশারিয়ার বিরুদ্ধে নিউ আলিপুর থানার পুলিশ এই মামলা রুজু করেছে। পুলিশ সুত্রে জানা গেছে, ওয়েস্টবেঙ্গল প্রহিবিশন অব স্মোকিং এন্ড স্পিটিং এন্ড প্রটেকশন অব হেল্থ অব নন-স্মোকার এন্ড মাইনরস অ্যাক্টে এই মামলা করা হয়েছে। এই আইন অনুযায়ী অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার এবং ২ হাজার থেকে ৫ হাজার রুপি পর্যন্ত জরিমানা করার সুযোগ রয়েছে। সম্প্রতি কলকাতা পুলিশের শীর্ষ কর্তারা সমস্ত ফিল্ড অফিসারদের প্রকাশ্যে থুথু ফেললে কঠোর ব্যবস্থা নেবার নির্দেশ দিয়েছে। শুধু রাস্তাঘাট বা প্রকাশ্য স্থান ছাড়াও সরকারি ভবনে, হাসপাতালে, আদালতে, স্কুল কলেজেও থুথু ফেললে কঠোর ব্যবস্থা নেবার কথা বলা হয়েছে। তবে প্রকাশ্যে মাঠেÑঘাটে বা রাস্তায় থুথু ফেলতে দেখা গেলে কলকাতা পুলিশ আইন এবং ডিজাস্টার ম্যানেজমেন্ট আইনেও মামলা করার বিধান রয়েছে। এবার থেকে থুথু ফেলার আগে সকলকে ভাবতে হবে, জরিমানা দেবেন নাকি ঢোক গিলে নিজেই মুক্তির রাস্তা ধরবেন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর