× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকরোনা আপডেটকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজান
ঢাকা, ২৬ মে ২০২০, মঙ্গলবার

মোদীর সঙ্গে বৈঠকে বিস্ফোরক মমতা

ভারত

কলকাতা প্রতিনিধি | ১১ মে ২০২০, সোমবার, ৭:২৩

লকডাউন থেকে কীভাবে বেরিয়ে আসা সম্ভব তা নিয়ে সোমবার আলোচনায় বসেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ভারতের সব রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে এই পঞ্চম ভিডিও কনফারেন্সে প্রথমেই এদিন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে বলার সুযোগ দেওয়া হয়েছিল। সেই সুযোগকে কাজে লাগিয়ে মুখ্যমন্ত্রী কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে তীব্র আক্রমণ করে বলেছেন, করোনা ইস্যুতে কেন্দ্রীয সরকার রাজনীতি করছেন এবং রাজ্যগুলির মধ্যে বৈষম্য করছেন। সঙ্কটের এই সময়ে কেন্দ্রীয় সরকারের এই রাজনীতি বন্ধ করা উচিত বলে তিনি মন্তব্য করেছেন। এনডিটিভির খবরে বলা হয়েছে, মমতা অভিযোগ করেছেন, কেন্দ্রীয সরকার রাজ্যগুলির মধ্য থেকে পছন্দ অনুযায়ী বাছাই করে তাদের পরিকল্পনা অনুযায়ী কাজ করছেন। তাদের কোনও মতামতও নেওয়া হচ্ছে না। মমতা দাবি করেছেন, সব রাজ্যকে সমান গুরুত্ব দিতে হবে। কেন্দ্রকে আমার অনুরোধ যুক্তরাষ্ট্রীয় কাঠামোকে সম্মান করুন।
করোনা মোকাবিলার প্রসঙ্গে মমতা প্রধানমন্ত্রীকে বলেছেন, আমরা আমাদের সেরাটা করছি। আমাদের চারিদিকে আন্তর্জাতিক সীমান্ত। ফলে আমাদের বিপদ অনেক বেশি। কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে রাজ্যেও মুখ্যমন্তক্রমণ চালিয়ে যাচ্ছেন। ভারত সরকারের বিশেষ পর্যবেক্ষক দল তাকে না জানিয়ে পাঠানোয় ক্ষুব্ধ মমতা প্রধানমন্ত্রীকেও চিঠি লিখেছিলেন। এরপর রাজ্যের লাল জোনের তালিকায় চারটির পরিবর্তে ১০টি জেলাকে অন্তর্ভুক্ত করা নিয়েও এক দফা সংঘাত হয়েছে। আগের দিনের বৈঠকে মমতাকে বলার সুযোগ না দেওয়ার অভিযোগ করায় এদিন তাকেই প্রথমে বলতে বলা হয়েছিল।  আগামী ১৭ মে তৃতীয় দফার লকডাউনের মেয়াদ শেষ হলে আদৌ লকডাউন তোলা হবে কি না, বা তোলা হলেও তার পদ্ধতি কী হবে, তা ঠিক করতেই এই  বৈঠক ডাকা হয়েছে। এদিনের বৈঠকে সব রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীকেই বলার সুযোগ দেওযা হয়েছে। ফলে বিকেল তিনটেয় বৈঠক শুরু হলেও তা শেষ হতে রাত নটা হয়ে যাবে বলে মনে করা হচ্ছে। এদিনের বৈঠকে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে উপস্থিত ছিলেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী অমিত শাহ, স্বাস্থ্য মন্ত্রী হর্ষবর্ধন এবং অর্থ মন্ত্রী নির্মলা সীতারমন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
Mahbub
১১ মে ২০২০, সোমবার, ৯:৪৩

We need a Mamata.

Mohammad iftakher ud
১১ মে ২০২০, সোমবার, ৯:১৪

Momota is the great, modi gov't is rabish of the world. They damage India.

অন্যান্য খবর