× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকরোনা আপডেটকলকাতা কথকতাখোশ আমদেদ মাহে রমজান
ঢাকা, ৭ জুলাই ২০২০, মঙ্গলবার

মানবদেহে আরো একটি সম্ভাব্য ভ্যাকসিনের পরীক্ষা

বিশ্বজমিন

মানবজমিন ডেস্ক | ২৭ মে ২০২০, বুধবার, ১:৫৬

অস্ট্রেলিয়ায় কোভিড নাইন্টিনের সম্ভাব্য আরেকটি ভ্যাকসিনের মানবদেহে পরীক্ষা শুরু হয়েছে। নোভাভ্যাক্স নামের এই ভ্যাকসিনটি মঙ্গলবার থেকে মানবদেহে প্রবেশ শুরু হয়েছে। এতে ১৩১ জন স্বেচ্ছাসেবী অংশ নিয়েছেন। এটি কোভিড নাইন্টিনের বিরুদ্ধে কার্যকরি কিনা এবং এর কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া আছে কিনা তা নিশ্চিত হতেই এই পরীক্ষা। কোম্পানিটির গবেষক দলের প্রধান ড. গ্রেগরি গ্লেন এসব তথ্য জানিয়েছেন। তারা ভ্যাকসিনটি নিয়ে আশাবাদি। ইতিমধ্যে বিশ্বজুড়ে প্রায় এক ডজন ভ্যাকসিন মানবদেহে পরীক্ষা শুরু হয়ে গেছে। এর বেশিরভাগই চীনের।
পাশাপাশি রয়েছে ইউরোপ ও যুক্তরাষ্ট্রেও। তবে এখনো এর মধ্যে কোনোটিই শতভাগ কার্যকর ও নিরাপদ প্রমাণিত হয়নি। সবগুলোই আংশিক কার্যকর। তাই সবাই আশা করে আছে যে হয়ত কোনো ভ্যাকসিন পুরোপুরি সফল হবে। গ্লেন বলেন, আমরা এখন পরীক্ষা করে দেখছি ভ্যাকসিন কার্যকর কিনা। কার্যকর হলে এটি এ বছরের শেষ নাগাদ উৎপাদন শুরু করা যাবে। প্রাণীদেহে এর আগে এই ভ্যাকসিন প্রবেশ করানো হয়েছিল। তাতে এর কার্যকারিতা পাওয়া গেছে। মানবদেহে এটি কার্যকর হলে এ বছরেই ১০ কোটি নোভাভ্যাক্স তৈরি করা যাবে। আর আগামি বছরে করা হবে ১৫০ কোটি মানুষের জন্য। এই ভ্যাকসিনের জন্য এখন পর্যন্ত বিনিয়োগ করা হয়েছে প্রায় ৪০০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার। এটি করেছে নরওয়ে ভিত্তিক একটি সংস্থা। আগামি জুলাই মাসেই ভ্যাক্সিনের ফলাফল সম্পর্কে জানা যাবে।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর