× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনরকমারিপ্রবাসীদের কথাবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ১৫ জুলাই ২০২০, বুধবার

মান্দায় মসজিদের দানের টাকা নিয়ে সংঘর্ষে নিহত ১

বাংলারজমিন

নওগাঁ প্রতিনিধি | ৭ জুন ২০২০, রবিবার, ৭:২৩

নওগাঁর মান্দা উপজেলার উত্তরবাদলঘাটা গ্রামে মসজিদের দানের টাকা ঘোষণা দেয়াকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষেও হামলায় তোফাজ্জল হোসেন (৪০) ও মকলেছার রহমান (৪২) নামে সহোদর গুরুতর আহত হন। আহতদের মধ্যে তোফাজ্জল হোসেন শনিবার সকালে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন। নিহত তোফাজ্জল ওই গ্রামের মৃত ফয়েজউদ্দিন মোল্লার ছেলে। এই ঘটনায় নিহতের ছোট ভাই হেলাল হোসেন বাদী হয়ে ৬ জনকে আসামি করে থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন গতকাল সকালে। পুলিশ এ ঘটনায় হামলাকারীদের মূল হোতা আব্দুল জলিল নামে একজনকে গ্রেপ্তার করে শনিবার দুপুরে জেলহাজতে পাঠিয়েছে।
মান্দা থানার ওসি মো. মোজাফ্‌ফর হোসেন জানান, শুক্রবার জুম্মার নামাজের সময় মসজিদের উন্নয়নে কে কত টাকা দান করেছেন বিষয়টি মসজিদের কমিটির পক্ষে ওই মসজিদ কমিটির ক্যাশিয়ার নিহতের বড়ভাই মকলেছার রহমান ঘোষণা দেন। ঘোষণা দেয়ার সময় বিষয়টি শুনতে না পেয়ে আব্দুল জলিল ও তার লোকজন নামাজ শেষে বাড়ি ফেরার পথে আবারো ক্যাশিয়ার মকলেছারের কাছে জানতে চান। এ নিয়ে দু’পক্ষের মধ্যে কথাকাটাকাটির এক পর্যায়ে বাকবিতণ্ডার সৃষ্টি হয় এবং আব্দুল জলিলের ছেলে শাকিল হোসেন মকলেছারকে চড়-থাপ্পড় মারেন। এ সময় দু’পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে।
পরে আব্দুল জলিল ও তার লোকজন সংঘবদ্ধ হয়ে দেশীয় অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে মকলেছার রহমান ও তার ছোটভাই তোফাজ্জল হোসেনের ওপর হামলা চালালে তারা গুরুতর আহত হন। আহতদের উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। সেখানে তাদের অবস্থার অবনিত ঘটলে ওইদিন সন্ধ্যায় রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সকাল ৯টার দিকে তোফাজ্জল হোসেন মারা যান। মসজিদ কমিটির সভাপতি আসাদ আলী জানান, মসজিদের উন্নয়নকল্পে ৮শ’ টাকা দানের ঘোষণা শুনতে না পারা নিয়ে আব্দুল জলিল ও তার লোকজন নামাজ শেষে বাড়ি ফেরার পথে তোফাজ্জল হোসেন ও মকলেছার রহমানের ওপর হামলা চালালে তারা গুরুতর আহত হন।
মান্দা থানার কর্মকর্তা ইনচার্জ (ওসি) মোজাফ্‌ফর হোসেন বলেন, এই ঘটনায় থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের হয়েছে এবং ঘটনার মূল হোতা আব্দুল জলিলকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে বলেও জানান, ওসি মোজাফ্‌ফর হোসেন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর