× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ৫ আগস্ট ২০২০, বুধবার

হতাশ হওয়া মানে নিজেকে শেষ করে দেওয়া -আমিন খান

বিনোদন

স্টাফ রিপোর্টার | ২৯ জুন ২০২০, সোমবার, ৯:০১

চিত্রনায়ক আমিন খান। ১৯৯৩ সালে মুক্তি পায় তার প্রথম সিনেমা ‘অবুঝ দুটি মন’। এ পর্যন্ত ১৬৫ টির বেশি সিনেমায় অভিনয় করেছেন তিনি। বর্তমানে এই অভিনেতা একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকুরী করছেন। অভিনয়ে আগের মতো ব্যস্ত নন তিনি। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, একটা সময় আমরা বিভিন্ন ধরনের গল্পে কাজ করেছি। একই ছবিতে অনেক অভিনেতা-অভিনেত্রী কাজ করতেন। সব শিল্পীর এসব গল্পে কাজ করার সুযোগ ছিলো।
কিন্তু এখন যে ধরনের গল্প ও চরিত্র পাই এগুলোতে আমার জন্য নতুন কিছু পাই না। অনেকে হয়তো ভাবেন আমার কাছে ছবির প্রস্তাব আসে না। সত্যি বলতে, আমি প্রায় সময় নতুন ছবির প্রস্তাব পাই। কিন্তু আমাদের ছবির গল্পে পরিবর্তন আনতে হবে। যেখানে আমাদের কাজ করার সুযোগ থাকে।
বলিউড অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের আত্মহত্যার পর বলিউডে স্বজনপোষন বিষয়টি বেশ জোরালো হয়ে দাড়িয়েছে। স্বজনপোষন নিয়ে কথা বলেন এই অভিনেতাও। ‘স্বপ্নের নায়ক’খ্যাত এই অভিনেতা বলেন, ১৯৯৫ সালে ব্যাংককে ‘প্রিয়জন’ ছবির শুটিং করতে গেলাম। আমি ছাড়াও ছিলেন রিয়াজ ও শিল্পী। ১২ দিনের শুটিংও করলাম। গান, দৃশ্য, অনেক কিছুই করা হয়েছে। ঢাকায় ফিরলাম। ঢাকায় আসার পর আমার সঙ্গে ছবিসংশ্লিষ্ট কারও যোগাযোগ নেই। পরে জানতে পারি, সালমান শাহকে নিয়ে ‘প্রিয়জন’ ছবির মহরত হবে। মাথায় আকাশ ভেঙে পড়ার অবস্থা। ভীষণ হতাশায় পড়ে যাই। রাগে-দুঃখে–কষ্টে এফডিসিতে যাওয়া বন্ধ করে দেই। সেই হতাশা কিভাবে কাটিয়ে উঠলেন? উত্তরে তিনি বলেন, আমি মনে করি হতাশ হওয়া মানে নিজেকে শেষ করে দেওয়া। আমার আত্মবিশ্বাস জন্মে আমি নিজেকে প্রমাণ করতে পারবো। সেখান থেকে তাই ঘুরে দাড়ানোর চেষ্টা করেছি। আমি সফলও হয়েছি। এদিকে এই অভিনেতা এখন ঘরেই থাকছেন বলে জানান। ঘরবন্দি সময় নিয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ২০২০ সালটি হবে নিজেকে সুস্থ ও স্বস্তিতে রাখার বছর। এখন নিজেকে সুস্থ রাখতে হলে ঘরেই থাকা বেশ নিরাপদ।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর