× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ৫ আগস্ট ২০২০, বুধবার

ছক ভাঙলেন জাহ্নবী

বিনোদন

বিনোদন ডেস্ক | ১০ জুলাই ২০২০, শুক্রবার, ৭:০৭

গ্ল্যামার দুনিয়াকেই পেশার জায়গা হিসেবে বেছে নিয়েছেন জাহ্নবী কাপুর। কিন্তু ইমেজ ধরে রেখেছেন একেবারে পাশের বাড়ির মেয়ের। ইভেন্ট, অ্যাওয়ার্ড ফাংশন, পার্টি, যেখানে যেমনটা দরকার, মেজাজের সঙ্গে মানানসই পোশাক পরে নেন জাহ্নবী। এখন তো দেখারই যুগ! তার ওপর গ্ল্যামার জগতের উঠতি নায়িকা বলে কথা। ঠাটে বাঁটে থাকা তাকেই মানায়। বাকি গ্ল্যামার কুইনদের মতো হাই হিল পরে ঠক ঠক আওয়াজ তুলে গাড়ির শোরুমের ফিতে কাটতে আসবেন তিনি, মানিয়ে যাবে দিব্যি। দেশের সব কাগজের পেজ থ্রিতে পরের দিনের তার বড় ছবি ছাপা হবে, ঠিক এরকম সব কিছুর জন্য মঞ্চ তৈরি ছিল। কিন্তু ছক ভাঙলেন জাহ্নবী।
খামোখা ঠাট বাটে বিশ্বাস করেন না তিনি। এক একটা পোশাক এক এক ইভেন্টে পরলেই পুরনো, এই ধ্যানধারণাতেই বিশ্বাসী বি-টাউনের সেলেবরা। কিন্তু শ্রীদেবী কন্যা ব্যতিক্রম। ইউথ আইকন হয়েও সে অনায়াসে নিজের সাক্ষাৎকারে বললেন, এক একটা
পোশাক এক এক বারই পরবো? এতটাও বড়লোক নই! স্টিরিওটাইপ ভাঙা নিয়ে আজকাল প্রায়শই নানা কথা চর্চায় থাকে। সেই হিসেবে জাহ্নবী কিন্তু স্টিরিওটাইপ ভেঙেছেন নিঃসন্দেহে। স্টারকিড বলে জীবনে লড়াই কম, এই অভিযোগ যেমন থাকে তাদের বিরুদ্ধে, তাহলে এও স্বীকার করে নিতে হবেই, ভাবমূর্তি ধরে রাখার চাপকে কিন্তু বুড়ো আঙুল দেখিয়েছেন এই তরুণী। দিব্যি পোশাক রিপিট করছেন। তিনি বলেন, আমি অযথা খরচাপাতিতে বিশ্বাসী না। আমার পরিবার এটা আমায় শেখায়নি। আমি ফ্যাশন সচেতন থাকবো। কিন্তু প্রতিদিনই আমাকে নতুন পোশাক পরতে হবে তা নয়। এটাকে অপচয় মনে করি আমি। তাছাড়া আমি যেমন, ঠিক নিজেকে তেমনভাবেই উপস্থাপন করতে পছন্দ করি। কোনো কিছুতে বাড়াবাড়ি আমার একদম পছন্দ নয়।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর