× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ১২ আগস্ট ২০২০, বুধবার

ফাঁদে অভিনেত্রী অর্পিতা

বিনোদন

বিনোদন ডেস্ক | ১২ জুলাই ২০২০, রবিবার, ১১:৫৬

অনলাইন গেমিং স্টেশনের ফাঁদে পড়ে লক্ষাধিক টাকা খোয়ালেন কলকাতার অভিনেত্রী অর্পিতা চট্টোপাধ্যায়। অনলাইনে একটি আন্তর্জাতিক গেমিং প্ল্যাটফর্মে টাকা দিয়েছিলেন তিনি। আর সেই প্লে-স্টেশনের ফাঁদে পা দিয়েই প্রতারণার শিকার টলিউডের এই খ্যতনামা অভিনেত্রী। অর্পিতা চট্টোপাধ্যায়ের অভিযোগ, প্লে-স্টেশনে টাকা দেওয়ার পর থেকেই ক্রমাগত টাকা কেটে নেওয়া হচ্ছে তার অ্যাকাউন্ট থেকে। পরে অভিনেত্রী বুঝতে পারেন যে, গুগল প্লে-স্টেশনের জন্য যখন অনলাইনে তিনি টাকা দিয়েছিলেন, তখন সেখানে নিজের কার্ডের ডিটেইলসও দিতে হয়েছিল তাকে। আর সেখান থেকেই দেড় লক্ষ টাকা কেটে নেওয়া হয়েছে বলে দাবি প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের স্ত্রী অর্পিতার। আর্থিকভাবে প্রতারিত হয়ে স্বাভাবিকভাবেই সাইবার ক্রাইমের অভিযোগ তুলেছেন অভিনেত্রী। তার বক্তব্য, দেশের কোনো সংস্থায় অনলাইনে টাকা দিতে হলে ব্যাংকের তরফে একটা ওটিপি অর্থাৎ ওয়ান টাইম পাসওয়ার্ড আসে।
সেটি গ্রাহক নিশ্চিত করার পরই একমাত্র তার অ্যাকাউন্ট থেকে টাকা কাটা হয়। কিন্তু আন্তর্জাতিক কোনো সংস্থার ক্ষেত্রে এমন কোনো নিয়ম কার্যকর নেই! কেন এক্ষেত্রেও ওটিপি দেওয়ার নিয়ম নেই? প্রশ্ন তুলে সরাসরি কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রকের কাছে জবাব চেয়েছেন অর্পিতা।
আর্থিকভাবে প্রতারিত অভিনেত্রী খানিক উদ্বিগ্ন হয়েই সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রশ্ন ছুঁড়েছেন যে, আন্তর্জাতিক সংস্থাগুলির ক্ষেত্রে কি জেনে-বুঝেই এমন নিয়ম তৈরি করা হয়েছে, যাতে লোকে এই ফাঁদে পা দেয়? এই ধরনের প্রতারণার বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ নেওয়ার কথাও বলেছেন তিনি। মানুষকে সতর্ক করার জন্য গোটা বিষয়টি টুইটারে জানিয়েছেন অর্পিতা।
অভিনেত্রীর মন্তব্য, প্রায় আড়াই-তিন মাস ধরেই প্রত্যেক মাসে মেইল পাচ্ছিলাম যে, একটা নির্দিষ্ট পরিমাণ টাকা কেটে যাচ্ছে আমার অ্যাকাউন্ট থেকে। এরকম হতে হতে প্রায় বারো মাস যাওয়ার পর আমার টনক নড়ল! এরপরই আমি ব্যাংকের সঙ্গে যোগাযোগ করি।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর