× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০, বুধবার

নাটোরে গম আত্মসাৎ মামলায় ইউপি চেয়ারম্যান ও মেম্বার কারাগারে

বাংলারজমিন

নাটোর প্রতিনিধি | ৬ আগস্ট ২০২০, বৃহস্পতিবার, ৮:১৪

নাটোরে সরকারি গম আত্মসাৎ মামলায় ছাতনী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান তোফাজ্জল হোসেন ও মেম্বার শাহানাজ পারভীনকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

বৃহস্পতিবার বিকালে নাটোরের  সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট খুরশিদ আলমের আদালতে হাজির করা হলে তাদের কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেয়া হয়। এর আগে বুধবার বিকেলে সদর উপজেলার ছাতনী ইউনিয়নের মাঝদীঘা পূর্বপাড়া গ্রামের কুরবান আলীর বাড়ি থেকে ১৮৪ বস্তা সরকারি গম জব্দ করা হয়।

নাটোরের পুলিশ সুপার লিটন কুমার সাহা জানান, ছাতনী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান তোফাজ্জল হোসেনের নাতনি জামাই কোরবান আলীর বাড়িতে গোপনে খাল খনন প্রকল্পের সরকারি গম রাখা হয়। বিষয়টি জানাজানি হলে মাঝদীঘা পূর্বপাড়া গ্রামের ওই বাড়িতে বুধবার বিকেলে অভিযান চালায় পুলিশ। অভিযানকালে একটি রুমে রাখা ১৮৪ বস্তা সরকারি গম পাওয়া যায়।

তিনি বলেন, এ সময় কুরবান আলী ও তার পরিবারের সদস্যরা জানান গমের বস্তাগুলো চেয়ারম্যান তোফাজ্জল হোসেন রেখে গেছেন। পরে চেয়ারম্যান তোফাজ্জল হোসেনকে ডাকা হলে তিনি গমের বিষয়ে সঠিক কোনো তথ্য দিতে পারেননি। পরে গম জব্দ করে থানা হেফাজতে নিয়ে আসা হয়। এ বিষয়ে বৃহস্পতিবার দুপুরে দুর্নীতি দমন কমিশন, সমন্বিত কার্যালয় রাজশাহীর সহকারী পরিচালক নাজমুল হুসাইন বাদী হয়ে গম আত্মসাতের অভিযোগে চেয়ারম্যানসহ তিনজনের নাম উল্লেখ করে মামলা দায়ের করেন। পরে চেয়ারম্যান তোফাজ্জল হোসেন, মেম্বার শাহানাজ পারভীনকে আটক করে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়।।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর