× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০, শনিবার

শনাক্তের সংখ্যা আড়াই লাখ ছাড়ালো

প্রথম পাতা

স্টাফ রিপোর্টার | ৮ আগস্ট ২০২০, শনিবার, ৯:০৬

দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা থামছে না। মৃত্যুর মিছিলও দীর্ঘ হচ্ছে। পরীক্ষা কমলেও শনাক্তের হার ২২ থেকে ৩২ শতাংশের মধ্যে ওঠানামা করছে। সংক্রমণ শুরুর ১৫৩ দিনের মাথায় করোনা শনাক্ত আড়াই লাখ ছাড়ালো। ১৩৩ দিনের মাথায় (১৮ই জুলাই) শনাক্তের সংখ্যা ছিল ২ লাখ ২ হাজার ৬৬ জন। এ সংখ্যা আড়াই লাখে পৌঁছাতে সময় লেগেছে ২০ দিন। দেড় লাখ থেকে দু’লাখ হতে সময় লেগেছে ১৬ দিন। ১১৭ দিনের মাথায় শনাক্তের সংখ্যা ছিল ১ লাখ ৫৩ হাজার ২৭৭ জন।
শনাক্ত এক লাখ থেকে দেড় লাখ হতে সময় লেগেছিল ১৪ দিন। ১০৩ দিনের মাথায় দেশে করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্তের সংখ্যা ছিল ১ লাখ ২ হাজার ২৯২ জন। প্রকোপ শুরুর পর প্রথম ৫০ হাজার রোগী শনাক্ত হয়েছিল ৮৭ দিনের মাথায়। এরপর তা ১ লাখে পৌঁছাতে সময় লেগেছে মাত্র ১৬ দিন। গত ৮ই মার্চ দেশে প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয়।

গতকাল করোনা নিয়ে নিয়মিত অনলাইন ব্রিফিংয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা জানান, দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে আরো ২ হাজার ৮৫১ জন করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছেন। এ পর্যন্ত দেশে মোট শনাক্ত হয়েছেন ২ লাখ ৫২ হাজার ৫০২ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যুবরণ করেছেন ২৭ জন। এ পর্যন্ত ৩ হাজার ৩৩৩ জন মারা গেছেন। গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৭৬০ জন। এখন পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন এক লাখ ৪৫ হাজার ৫৮৪ জন।

তিনি আরো জানান, বর্তমানে ৮৪টি পরীক্ষাগারে কোভিড-১৯ এর পরীক্ষা হচ্ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগ্রহ হয়েছে ১৩ হাজার ২৫৩টি। নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ১২ হাজার ৬৯৯টি। এখন পর্যন্ত মোট নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ১২ লাখ ৩৭ হাজার ৮২৩টি। গত ২৪ ঘণ্টায় শনাক্তের হার ২২ দশমিক ৪৫ শতাংশ, এ পর্যন্ত শনাক্তের হার ২০ দশমিক ৪০ শতাংশ। ২৪ ঘণ্টায় শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৫৭ দশমিক ৬৬ শতাংশ এবং শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৩২ শতাংশ। মারা যাওয়া ২৭ জনের মধ্যে পুরুষ ২৪ জন এবং নারী ৩ জন। হাসপাতালে মারা গেছেন ২৬ জন এবং বাড়িতে ১ জন। এ পর্যন্ত পুরুষ মোট মারা গেছেন ২ হাজার ৬৩০ জন; যা ৭৮ দশমিক ৯১ শতাংশ এবং নারী মারা গেছেন ৭০৩ জন; যা ২১ দশমিক শূন্য ৯ শতাংশ। পুরুষ শনাক্তের হার ৭১ শতাংশ এবং নারী শনাক্তের হার ২৯ শতাংশ।

একদিনে মারা যাওয়াদের বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে ৪ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ৬ জন, ৬১ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে ১২ জন, ৭১ থেকে ৮০ বছরের মধ্যে ৪ জন এবং ৮১ থেকে ৯০ বছরের মধ্যে ১ জন রয়েছেন। এ পর্যন্ত যারা মৃত্যুবরণ করেছেন তাদের বয়স এবং শতকরা হারে দেখা গেছে, শূন্য থেকে ১০ বছরের মধ্যে ১৮ জন, যা দশমিক ৫৪ শতাংশ; ১১ থেকে ২০ বছরের মধ্যে ৩৩ জন, যা দশমিক ৯৯ শতাংশ; ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে ৮৭ জন, যা ২ দশমিক ৬১ শতাংশ; ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে ২১৪ জন, যা ৬ দশমিক ৪২ শতাংশ; ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে ৪৬২ জন, যা ১৩ দশমিক ৮৬ শতাংশ; ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ৯৫৩ জন, যা ২৮ দশমিক ৫৯ শতাংশ এবং ৬০ এর অধিক বয়সের রয়েছেন ১ হাজার ৫৬৬ জন, যা ৪৬ দশমিক ৯৮ শতাংশ।

২৪ ঘণ্টায় বিভাগভিত্তিক মৃতের সংখ্যায়- ঢাকা বিভাগে ১৩ জন, খুলনা ৫ জন, চট্টগ্রাম ও রাজশাহী বিভাগে ৩ জন করে, রংপুর বিভাগে ২ জন এবং বরিশাল বিভাগে ১ জন। এ পর্যন্ত বিভাগ অনুযায়ী মারা গেছেন, ঢাকা বিভাগে ১ হাজার ৫৯৭ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে ৭৯৪ জন, রাজশাহী বিভাগে ২০৫ জন, খুলনা বিভাগে ২৪৭ জন, বরিশাল বিভাগে ১৩১ জন, সিলেট বিভাগে ১৫৬ জন, রংপুর বিভাগে ১৩২ জন এবং ময়মনসিংহ বিভাগে ৭১ জন।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর