× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ২ অক্টোবর ২০২০, শুক্রবার

মানবজমিনে সংবাদ প্রকাশের পর মির্জাগঞ্জে রাস্তা নির্মাণে তরিঘড়ি

বাংলারজমিন

মির্জাগঞ্জ (পটুয়াখাল) প্রতিনিধি | ৯ আগস্ট ২০২০, রবিবার, ১২:৫৭

দৈনিক মানবজমিন পত্রিকায় সংবাদ    প্রকাশের পর। রাস্তা নির্মাণ কাজ শুরুর ২ বছরেও কাজ শেষ না করা মির্জাগঞ্জ উপজেলার মহাসড়ক সংলগ্ন পশ্চিম সুবিদখালী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় হয়ে ইসমাইল মেম্বর বাড়ি পর্যন্ত ২ কি.মি. রাস্তা     নির্মাণ কাজে তরিঘড়ি শুরু করেছেন ঠিকাদার। নতুন রাস্তার কাজ শুরু করার কিছুদিন পরে কাজ বন্ধ করে দেয় ঠিকাদার। পরে দীর্ঘ ২ বছরের বেশি সময় অতিবাহিত হলেও আর কাজ করেনি ঠিকাদার প্রতিষ্ঠানটি। এলাকাবাসীর অভিযোগে গত ৪ঠা জুলাই ‘দৈনিক মানবজমিনে’ মির্জাগঞ্জে রাস্তা নির্মাণে ধীরগতি ভোগান্তিতে এলাকাবাসী’ এমন শিরোনামে সংবাদ প্রকাশের পর টনক নড়ে সংশ্লিষ্ট দফতরের। পরে  উপজেলা প্রকৌশলী শেখ আজিম উর রশিদ সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারকে সিডিউল মোতাবেক দ্রুত কাজ সম্পন্ন করার নির্দেশ দেন। এর প্রেক্ষিতে গত  ৬ই আগস্ট  বৃহস্পতিবার থেকে সকালে ওই রাস্তা নির্মাণ কাজে তরিঘড়ি হয়ে ওঠেন ঠিকাদার প্রতিষ্ঠানটি।  
উল্লেখ্য, গত  ২০১৮ সালে ২৯শে আগস্ট ১ কোটি ৫০ লাখ ৬০ টাকা ব্যয়ে এলজিইডি কর্তৃক রাস্তাটির দরপত্র আহ্বান করা হলে পটুয়াখালীর মেসার্স বশির উদ্দিন এন্টারপ্রাইজের স্বত্বাধিকারী মো. বশির উদ্দিন কাজটি পান।
২০১৮ সালে ১লা সেপ্টেম্বর কার্যাদেশ দেয়া হয়। কাজ শুরুর কিছু দিন যেতে না যেতেই ৯০ লাখ ৪৮ হাজার টাকা বিল উত্তোলন করে কাজ বন্ধ করে দেয়। এরপর ২ বছর পেরিয়ে গেলেও কাজ শেষ করেনি ঠিকাদার।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
অন্যান্য খবর