× প্রচ্ছদ অনলাইনপ্রথম পাতাশেষের পাতাখেলাবিনোদনএক্সক্লুসিভভারতবিশ্বজমিনবাংলারজমিনদেশ বিদেশশিক্ষাঙ্গনসাক্ষাতকাররকমারিপ্রবাসীদের কথামত-মতান্তরফেসবুক ডায়েরিবই থেকে নেয়া তথ্য প্রযুক্তি শরীর ও মন চলতে ফিরতে ষোলো আনা মন ভালো করা খবরকলকাতা কথকতা
ঢাকা, ১ অক্টোবর ২০২০, বৃহস্পতিবার

হাসপাতালে রুপান্তর হচ্ছে মহাখালী ডিএনসিসি মার্কেট

অনলাইন

স্টাফ রিপোর্টার | ৯ আগস্ট ২০২০, রবিবার, ৪:৪১

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম বলেছেন, ডিএনসিসি'র নিজস্ব কোন হাসপাতাল নেই। ঢাকা সিটি করপোরেশন যখন দুই ভাগ হয়, তখন তিনটি হাসপাতালই দক্ষিণ সিটি করপোরেশন এলাকায় পড়ে। এজন্য বর্তমানে করোনা আইসোলেশন সেন্টার হিসাবে ব্যবহৃত মহাখালীস্থ ডিএনসিসি মার্কেটকে ৫০০ শয্যার আরবান হাসপাতালে রূপান্তরের পরিকল্পনা করা হচ্ছে।

রোববার মহাখালী ডিএনসিসি করোনা আইসোলেশন সেন্টার পরিদর্শনকালে তিনি এসব কথা বলেন।

মেয়র বলেন, ৭ দশমিক ১৭ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত এই মার্কেটটির আয়তন ১ লাখ ৮০ হাজার ৫৬০ বর্গফুট। যেহেতু ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের কোন ধরনের আরবান হাসপাতাল নেই। এটিকে কিভাবে আরবান হাসপাতালে রুপান্তর করা যায়, আমরা তার পরিকল্পনা করছি। তিনি বলেন, মহাখালী ডিএনসিসি মার্কেটকে আমরা যদি আরবান হাসপাতালে রূপান্তর করতে পারি, তাহলে নগরবাসীর জন্য অনেক সুবিধা হবে।


এখানে বেড থেকে শুরু করে সকল ধরনের ইকুইপমেন্ট মোটামুটি আছে। ছয়তলায় ইংল্যান্ড থেকে আনা উন্নত মানের ২৫টি আইসিইউ আছে। আমরা এটিকে অচিরেই ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের বাসীন্দাদের জন্য একটি আধুনিক মাপের হাসপাতাল করার ইচ্ছা আমরা পোষণ করছি। মিরপুরে প্যারিস মার্কেটকেও কিভাবে হাসপাতালে রূপান্তর করা যায় তা চিন্তাভাবনা করছি। এই দুটি ভবনকে হাসপাতালের রূপান্তর করার জন্য খুব শিগগিরই সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ ও প্রধানমন্ত্রীর কাছে একটি প্রস্তাবনা আমরা জমা দেব।

আতিকুল ইসলাম বলেন, ডিএনসিসি মার্কেট মূলত পাইকারি কাঁচাবাজারের জন্য তৈরি করা হয়েছিল। কিন্তু বিভিন্ন কারণে এটি বাজারে বাস্তবায়ন করা যায়নি। ৭০০ দোকান বিক্রয়ের পরিকল্পনা নিয়ে গত বছর আমরা সিটি করপোরেশনের বাজেট প্রণয়ন করেছিলাম। তখুনি কোভিড ১৯ আসলো।

অবশ্যই দিতে হবে *
অবশ্যই দিতে হবে *
পাঠকের মতামত
**মন্তব্য সমূহ পাঠকের একান্ত ব্যক্তিগত। এর জন্য সম্পাদক দায়ী নন।
ডাঃ মোঃ আবু বকর সিদ্
৯ আগস্ট ২০২০, রবিবার, ৪:০৪

অবশ্যই একটা ভালো সিদ্ধান্ত। তবে যন্ত্রপাতি কেনাকাটার প্রক্রিয়ায় সিন্ডিকেটের দংশনে দংশিত না হওয়ার জন্য শুভ কামনা রইলো।

অন্যান্য খবর